মাদক খাইয়ে আমাকে বিছানায় নেয় : কঙ্গনা

সুশান্ত সিং রাজ’পুতের মৃ’ত্যু’র ঘট’না’য় উঠে এসে’ছে মা’দ’ক চ’ক্রে’র যোগ থা’কার স’ম্ভ’বনা। বেশ’কিছু হো’য়াট’সঅ্যা’প চ্যা’ট থেকে মনে ক’রা হ’চ্ছে, মা’দ’ক চ’ক্রে’র স’’ঙ্গে যোগ রয়ে’ছে মূ’ল অ’ভিযু’ক্ত রি’য়া চক্র’ব’র্তীর।

এদি’কে বি-টা’উনে মা’দক’চ’ক্র নিয়ে বি’স্ফো”ক দা’বি কর’লেন ক’’ঙ্গনা রা’নাওয়াত। ভা’রতীয় সং’বা’দমাধ্য’মে ক’’ঙ্গনা দা’বি ক’রেন, আমি যখন মানা’লি

ছে’ড়ে’ছিলা’ম তখন আমা’র ১৬ বছ’র বয়স। চন্ডী’গ’ড়ে একটি প্রতি’যো’গি’তায় জি’তে এক সংস্থা’র মাধ্য’মে মুম্বাই এসে’ছি’লাম। কে’রিয়া’রের শু’রুর দিকে হ’স্টে’লে থা’কতা’ম,

‘তা’র’পর এক আ’ন্টি’র স’’ঙ্গে থাকা শু’রু করি। সে’স’ময় এক চরিত্র অ’ভি’নেতা আ’মা’র স’’ঙ্গে ব’ন্ধু’ত্ব ক’রে এবং ব’লি’উ’ডে কা’জ পা’ইয়ে দেও’য়ার প্র’তি’শ্রুতি দেয়।

আমি যে নারী’র স’’ঙ্গে থা’কতা’ম, তার প্র’তিও মু’গ্ধ ছি’লেন ওই অ’ভি’নেতা। তারপর আম’রা তি’নজ’নে একস’’ঙ্গে’ই থাকা শু’রু ক’রি। ধী’রে ‘ধী’রে তিনি নি’ই স্ব’নিযু’ক্ত প’রা’ম’র্শ’দাতা হয়ে উঠলে’ন।

পরে ওই চ’রিত্র অ’ভিনেতা’ আ’ন্টির’ স’’ঙ্গে ঝ’গ’ড়া ক’রে তাঁ’কে বের ক’রে দেন। আমা’র জিনি’সপ’ত্র সহ একটা ঘ’রে রে’খে তা’লাব’ ক’রে রা’খেন। আ’মি যাই ‘কর’তা’ম, ওনাকে ব’লে ক’রতে ‘হতো, আ’মি এ’কপ্রকা’র গৃহ’ব’ন্দী হয়ে গিয়ে’ছি’লাম।’ এখানেই শেষ নয়, নি’জে’র ভ’য়াব’হ অ’ভি’জ্ঞতা জা’নি’য়ে ক’’ঙ্গ’না বলেন,

ওই ব্য’ক্তি আ’মায় বি’ভিন্ন পা’র্টি’তে নিয়ে যেতেন। এ’কদিন আ’মি নে’শা’গ্র’স্ত বোধ কর’লাম, ও’নার স’’ঙ্গে ঘনিষ্ঠ হয়ে’ছি’লাম। মা’দক খা’ইয়ে আ’মাকে বি’ছানা’য় নে’য়।

পরে বু’ঝ’লাম, এটা স্বে’চ্ছায় হয়নি, আ’মা’র পানী’য়’র ম’ধ্যে কিছু মেশানো হয়ে’ছিল। এর’পর থে’কে ওই অ’ভিনেতা’ নি’জেকে আমা’র স্বা’মী’র ম’তো আচ’রণ ক’রা শুরু ক’রলেন।

কিছু বল’লেই মা’র’ধ’র কর’তেন। প্রতি’বাদ জানি’য়ে বলে’ছিলা’ম, আপনি আমা’র বয়’ফ্রে’ন্ড নন, বল’তেই আ’মায় চটি দি’য়ে মা’র’লে’ন। ক’’ঙ্গ’নার ক’থায়, ওই ব্য’ক্তি আ’মাকে দুবা’ইয়ে’র বি’ভিন্ন লোক’জনে’র স’’ঙ্গে আ’লা’প ক’রালেন। আমা’কে বললে’ন প্রবী’ণদে’র মাঝে যে’ন বসি, আর তি’নি তখন’ ওই জা’য়’গাটি ছেড়ে চলে যা’বেন।

আমা’কে তাঁদে’র ন’ম্বর নিতেও বলেছি’লে’ন। আমি আ’ত’ঙ্কি’ত হয়ে পড়ে’ছিলা’ম এ’টা ভেবে যে, আমা’য় দুবা’ইতে পাচা’র ক’রে দে’ওয়া হ’বে না তো?এখা’নে’ই শে’ষ নয়, ক’’ঙ্গনা জা’নান,

আ’মি যখন সিনে’মা’য় সু’যো’গ পাই ওই’ ব্য’ক্তি রে’গে গি’য়েছি’লেন। উনি ম’ত্ত অ’বস্থা’য় আ’মায় বললে’ন, তিনি ভা’বেন’নি আমি সি’নেমা’য় সু’যোগ পাব।

তারপ’র আমা’কে ইন’জে’কশন দিয়ে বি’দ্রু’প ক’রে ব’ল’লেন আ’মি আর শ্যু’টিংয়ে যে’তে পা’র’বো না। আমি পু’রো বি’ষয়টা অ’নু’রাগ ব’সুকে জা’নি’য়েছি’লাম (ক’ঙ্গনার প্র’থম ছবি গ্যাং’স্টা’রের পরি’চাল’ক) তিনিই আমা’য় আ’শ্রয় দি’য়েছি’লেন। অনু’রাগ বসু আ’মায় রা’তে তাঁর অ’ফি’সে থাকা’র ব্যব’স্থা ক’রে দেন। অ’বশ্য প’রে এই অ’ভিনে’তার’ নাম প্র’কাশ ক’রেন জিনিউজ

Be the first to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.


*